পানি কমতে শুরু করেছে দিনাজপুরে, স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলছে জনগন

refugee
আশ্রয় কেন্দ্রে মালেকা বানু একাকী বসে আছেন তার একমাত্র অবলম্বন একটি ছাগলকে নিয়ে।

ভয়াবহ বন্যায় দিনাজপুর শহর তলিয়ে গিয়েছে। শহরের অধিকাংশ স্থানেই ছিল পানির নিচে। ছিল না বিদ্যুৎ। বন্ধ হয়ে গিয়েছিল যান চলাচল, এমনকি ট্রেনও। তবে সেই পানি ইদানিং কমতে শুরু করেছে। মূল শহর এখন শুকনো। আশ্রয় কেন্দ্র থেকে ফিরতে শুরু করেছে লোকজন। তবে শহরের বিভিন্ন কোনায় জমে থাকা পানির কারণে মশার উপদ্রব বৃদ্ধি পেয়েছে। বন্যার পানিতে মৃত্যু হয়েছে অনেক প্রাণীর আর এতেই বৃদ্ধি পেয়েছে পচা দুর্গন্ধ। অন্যদিকে এখনও রয়েছে তীব্র খাবার সংকট। বিশুদ্ধ পানির অভাবও প্রকট। পৌরসভা থেকে পানি দেয়া হচ্ছে, কিন্তু তা প্রয়োজনের তুলনায় নগন্য।

Flood

আক্রান্ত লোকজন এখন অসহায়, তাদের বাড়িঘর হারিয়ে। অনেকেই হারিয়েছেন উপার্জনের অবলম্বন গবাদি পশু। লোকজন এ কারণে এখন দিশেহারা। তারা কি করবে, বুঝতে পারছে না। আশ্রয় কেন্দ্র থেকে অনেকের টাকা-পয়সা লুট হয়েছে। অনেকেই এসকল অসহায় মানুষের পাশে এসে দাড়িয়েছেন, কিন্তু এটা তাদের জন্য যথেষ্ট নয়। অসহায় লোকজন এখন তাকিয়ে আছে কিছুটা সাহায্যের আশায়, যাতে তারা আবার একটু দাড়াতে পাড়ে।

পানির নিচে দিনাজপুর

Hospital
অসুস্থ রোগীকে হাসপাতাল থেকে নেয়া হচ্ছে আশ্রয় কেন্দ্রে।

ভয়াবহ বন্যার কারণে পানির নিচে তলিয়ে গেছে দিনাজপুর এর অধিকাংশ স্থান। ভেঙ্গে গেছে বাধের অনেক স্থান। আর এতেই শহর এবং গ্রামে ঢুকে পড়েছে পানি। বেশ কিছু স্থানে পানি এতটাই উচু স্থানে, যে তাদের বাসার বিদ্যুৎ লাইনে পানির সীমে অতিক্রম করেছে। আর এ জন্য অনেক স্থানেই বন্ধ করে দেয়া হয়েছে বিদ্যুৎ সংযোগ। দোকান-পাট বন্ধ থাকার কারণেই খাবার সঙ্কট বৃদ্ধি পাচ্ছে। বন্ধ হয়ে গেছে রেল চলাচল। এ ছাড়াও পানির জন্য অনেক স্থানেই সকল ধরণের যান চলাচলও বন্ধ হয়ে গেছে। বেশ কয়েকটি হাসপাতাল বন্ধ হয়ে গেছে, কেননা হাসপাতালের অভ্যন্তরে পানি প্রবেশ করেছে। এ সকল হাসপাতাল থেকে রোগীদের সরিয়ে নিয়ে আশ্রয় কেন্দ্র কিংবা অন্যত্র নিয়ে যাওয়া হচ্ছে, এতে বহ্যত হচ্ছে চিকিৎসা।

প্রায় দের লক্ষ মানুষ আশ্রয় নিয়েছে বিভিন্ন আশ্রয় কেন্দ্রে। তবে এ সকল স্থান তারা মানবেতর জীবন-যাপন করছেন। খাবার, বিশুদ্ধ পানি এবং প্রয়োজনীয় ঔষধ এর রয়ছে তীব্র অভাব। এ সকল আশ্রয় কেন্দ্রের অধিকাংশ স্থানেই নেই বিদ্যুৎ। ফলে রাতের বেলায় অন্ধকারের ভেতরেই কাটাতে হচ্ছে তাদের। একই সাথে বসবাস করছে গবাদি পশু ও মানুষ। গবাদি পশু’র মল-মূত্র’র জন্য তৈরি হচ্ছে তীব্র গন্ধ ও দূষণ।

Flood
পলিথিন দিয়ে তৈরি করা হয়েছে ছোট্ট একটি ঘড়। আর এখানেই থাকছে গবাদি পশু এবং মানুষ একসাথে।

এর আগে এরকম হয়েছিল ১৯৮৮ এবং ১৯৯৮ সালে। তবে অনেকেরই আশংকা, এবার হয়ত আগের দুবারের চেয়ে ভয়াবহ পরিস্থিতি তৈরি হতে পারে।

তবে অনেকেই এগিয়ে এসেছেন তাদের সাহায্যের হাত বাড়িয়ে। মানণীয় হুইপ ইকবালুর রহিম নিজে পানিতে ভিজে খাবার ও অন্যান্য জরুরি জিনিসপত্র সরবরাহ করেছেন। বিশিষ্ট ব্যবসায়ী জনাব পাটওয়ারী প্রতিদিন খিচুরি রান্না করে সরবরাহ করছেন। এ ছাড়াও অনেক তরুণ এগিয়ে এসেছে, যারা নিজেরা সংগ্রহ করছেন অর্থ এবং খাবার। তারা নিজেরা তৈরি করছেন খাবার এবং সরবরাহ করছেন।

Sport
এক সময়ে এটি ছিল খেলার মাঠ, কিন্তু বন্যার পানির কারণে মাঠটি এখন তলিয়ে গেছে পানির নিচে। কিন্তু বালকটি এখনও খেলছেন তার পুরনো প্রিয় খেলার মাঠে।

Linkin Park singer Chester Bennington has committed suicide

Linkin Park singer Chester Bennington has committed suicide by hanging. The dead body was found Thursday just before 9 AM. Chester was married with six children from 2 wives.

linkin park
Ambulance is carrying the dead body of Chester Bennington

He struggled with drugs and alcohol for several years. He had informed in the past he had considered committing suicide because he had been sexually abused as a child by a man.

Chester Bennington song the sing “In the End” which is one of the most popular songs ever.

wedding dairy

নির্মাণাধীন ভবন থেকে ইট পরে ইউডা ছাত্র আখিদুল কোমায়

student
আখিদুল ইসলাম

ইউনিভার্সিটি অব ডেভেলপমেন্ট অলটারনেটিভের (ইউডা) চারুকলা বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র মো. আখিদুল ইসলাম মোহাম্মদপুরে মোহাম্মদীয়া হাউজিং এলাকায় নির্মাণাধীন একটি ভবন এর সামনের রাস্তা দিয়ে হেটে যাবার সময়ে তার মাথায় একটি ইট পড়ে এবং ঘটনাস্থলে তিনি অজ্ঞ্যান হয়ে পরেন। এর পরে পথচারীরা তাকে দ্রুত পঙ্গু হাসপাতালে নিয়ে যান। পরে তাকে নেয়া ঢাকা মেডিকেল কলেজে। এরপরে অস্ত্রপচারের জন্য তাকে নেয়া হয় স্কয়ার হাসপাতালে। অস্ত্রপচার শেষ করে তাকে আই সি ইউতে নেয়া হয়। তবে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, তার অবস্থা সংকটাপন্ন এবং ৭২ ঘন্টা অতিবাহিত না হলে কিছুই বলা যাচ্ছে না।

ওই ভবনটি মোহাম্মদীয়া হাউজিংয়ের ৭ নম্বর রোডের ১/বি নম্বর বাসা। বাসার মালিক জানিয়েছেন বিয়ে এর প্যান্ডেল সাজানোর কাজ চলছিল এবং এ সময়ে অসতর্কভাবে একটি ইট নিচে পরে যায়। ভবন মালিক মোশাররফ হোসেন ও তাঁর ছেলেকে আটক করে থানায় আনা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে আখিদুল এর ভগ্নিপতি প্রচ্ছদশিল্পী মোস্তাফিজ কারিগর মোহাম্মাদপুর থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন। মামলার প্রস্তুতি চলছে। আহত শিক্ষার্থীর স্বজনেরা দোষীদের শাস্তি ও উপযুক্ত ক্ষতিপূরণ দাবি করেছেন।

আঘাত হানছে ঘুর্ণিঝড় মোরা, উপকূল এলাকায় ১০ নম্বর মহা বিপদ সঙ্কেত

cyclone mora
ঘুর্ণিঝড় মোরা এর গতিপথ
earth.nullschool.net

ঘুর্ণিঝড় মোরা আঘাত হানতে শুরু করেছে বাংলাদেশ। চট্টগ্রাম ও কক্সবাজার এলাকায় ১০ নম্বর মহা বিপদ সঙ্কেত দেখানো হয়েছে। এ ছাড়া মোংলা ও পায়রা সমুদ্রবন্দরকে ৮ নম্বর বিপৎসংকেত দেখাতে বলা হয়েছে। ইতিমধ্যে তলিয়ে গেছে উপকূল এলাকার প্রায় ১০ টি এলাকা। স্থানীয় বাসিন্দাদের নিরাপদ আশ্রয় কেন্দ্রে নিয়ে যাবার কাজ শুরু করা হয়েছে। প্রায় দু লক্ষ বাসিন্দা এ মুহুর্তে আশ্রয় কেন্দ্রে অবস্থান করছেন। তবে সেখানে এখন পর্যন্ত পর্যাপ্ত খাবার, বিশুদ্ধ পানীয় সরবরাহ করা হয়নি। তবে বিভিন্ন সংস্থা ইতিমধ্যেই তাদের প্রস্তুতি নেয়া শুরু করেছে। যেহেতু বৃষ্টি হচ্ছে না, তাই ঘুর্ণিঝড় এর শক্তি বৃদ্ধি পাবার সম্ভাবনা রয়েছে। শ্রীলঙ্কায় আঘাত হেনে এটি আরও শক্তি সঞ্চয় করে তা বাংলাদেশের দিকে ধেয়ে আসছে। এর আগে সিডর এর সময়েও ১০ নম্বর সংকেত দেখানো হয় নি। তাই আশঙ্কা করা হচ্ছে, এবার আরও ভয়াবহ কিছু ঘটতে যাচ্ছে।

ইতিমধ্যে তিনজন এর মৃত্যু সংবাদ পাওয়া গেছে, রহমত উল্লাহ (৫০) এবং সায়েরা খাতুন (৬০) এ দুজন এর মৃত্যু হয়েছে গাছের চাপায়, আর এক নারী মরিয়ম বেগম (৫৫) মৃত্যু বরণ করেছেন আতঙ্কে। তিনি একটি আশ্রয়কেন্দ্রেই ছিলেন। প্রচুর গাছপালা ভেঙ্গে পড়েছে এবং কাঁচা ঘড় বিধস্ত হয়েছে, এসব ঘরে অদৌ কেও ছিল কিনা, তা এখন পর্যন্ত জানা যায় নি।

cyclone mora
উপকূল এলাকাসমুহ ইতিমধ্যে তলিয়ে যাচ্ছে।
ছবিঃ যুবাইর বিন ইকবাল
cyclone mora
সমুদ্র ইতিমধ্যেই ধীরে ধীরে উত্তাল হওয়া শুরু করে দিয়েছে।
ছবিঃ যুবাইর বিন ইকবাল

বন্ধ করে দেয়া হয়েছে চট্টগ্রাম বিমানবন্দরে বিমান ওঠা-নামা। সারা দেশের নৌ যান চলাচলও বন্ধ করে দেয়া হয়েছে, সমুদ্র থেকে ফিরে আসতে বলা হয়েছে সকল মাছ ধরার ট্রলারকে।

ঘুর্ণিঝড় মোরার আঘাতে শ্রীলংকায় ইতিমধ্যেই ২১০ জন নিহত, ১ লাখ মানুষ গৃহহীন এবং অসংখ্য মানুষ নিঁখোজ হয়েছে। ভারত এর কিছু এলাকায়ও আঘাত হেনেছে, তবে এখনও কোন হতাহতের খবর পাওয়া যায় নি।

ভিয়েনা থেকে প্রতিনিয়ত খবর রাখছেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। রাষ্ট্রীয় সফরে তিনি এখন অস্ট্রিয়া’য় রয়েছেন। ইতিমধ্যে বিভিন্ন এলাকা পরিদর্শন করেছেন চট্টগ্রাম শহরের জেলা প্রশাসক মো. জিল্লুর রহমান চৌধুরী। এ ভয়াবহ দুর্যোগ থেকে রক্ষা পেতে রাজধানী ঢাকার কাকরাইল মসজিদে এশা’র নামাজের পরে বিশেষ মুনাজাত করা হয়।

জরুরী নম্বর
১) নিকটতম ঘূর্ণিঝড় আশ্রয় কোথায় তা জানতে 611545 এ কল করুন
২) চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন হটলাইন 630739
৩) কেউ আহত হলে 634843 এ কল করুন

বাংলাদেশে র‍্যানসমওয়্যার আক্রমণ

বাংলাদেশে র‍্যানসমওয়্যার Continue reading “বাংলাদেশে র‍্যানসমওয়্যার আক্রমণ”

সানরাইজ ভবনে অগ্নি দুর্ঘটনা

Fire Service Bangladesh
সানরাইজ ভবন ঘুরে দেখছেন ফায়ার সার্ভিস কর্মী
ছবিঃ যুবাইর বিন ইকবাল

রাজধানীর এলিফ্যান্ট সড়কে সানরাইজ ভবনে আজ সকালে রিল্যায়েন্স কম্পিউটার দোকানে আগুন লাগে। ওই দোকানে ছিল, কয়েক কোটি টাকার কম্পিউটার যন্ত্রাংশ ও ল্যাপটপ। প্রায় ৩০০০ স্কয়ার ফীট এর এই দোকানের মালিক জানিয়েছেন, প্রায় এক কোটি টাকার সম্পদ পুড়ে গেছে তার।

আগুন লাগার কিছুক্ষন পরেই দমকল বাহিনী চলে আসে। কিন্তু ভবনের মূল ফটক তালাবদ্ধ ছিল। তালা কেটে প্রবেশ করতে পেরিয়ে যায় বেশ কিছু সময়। আর এ সময়ে ছড়িয়ে যায় আগুন। পুরো এলাকা ধোঁয়ায় ভরে যায়। এরপরে ফায়ার সার্ভিস এর ১২ টি ইউনিট প্রায় এক ঘন্টা প্রাণপণ চেস্টার পরে আগূন নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হন।

এ সময়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে প্রায় শতাধিক পুলিশ সদস্য মেতায়েন করা হয়।

প্রতারণার স্বীকার হয়ে গর্ভবতী মা ও সন্তানের মৃত্যু

রক্তদান এক মহৎ কাজ। অনেকেই আজ এগিয়ে আসছে স্বেচ্ছায় রক্তদানের জন্য। মৃত্যু শরণাপন্ন অনেক রোগীই আলোর মুখ দেখছেন এই স্বেচ্ছাসেবীদের জন্য। কিন্তু অনেকেই আবার এই প্রতারণার স্বীকার হচ্ছেন এই কারণে। অনেককেই ফোন দিয়ে জানানো হয় যে রক্ত দেওয়ার কথা,সেজন্য বেশ বড় পরিমাণ অর্থ দাবি করা হয়। নিরুপায় হয়ে আগেই তারা বিকাশের মাধ্যমে অর্থ প্রদাণ করে। আবার অনেকেই বিনা স্বার্থে রক্তদান করতে রাজি হয়। মিরপুর ইসলামি ব্যাংক হাসপাতালে বিকেল ৪ টায় সালেহা বেগম (৪৩) এর সিজারের মাধ্যমে অপারেশনের সময় ঠিক হয়। চিকিৎতসকদের পরামর্শ অনু্যায়ী অপারেশনের জন্য জরুরী ভিত্তিতে AB+ রক্তের প্রয়োজনথ।সালেহা বেগমের ভাই সিরাজ(২৪) এ ব্যাপারে ফেসবুকে রক্তদান সম্পর্কিত এক গ্রুপে পোস্ট দেয়। তা দেখে উত্তরা মাইলস্টোন কলেজের এক ছাত্র স্বেচ্ছায় রক্ত দিতে উৎসাহী হয়। হাসপাতালেরসময় অনুযায়ী ৪.৩০ নাগাদ অপারেশন, তার ৪ টার মধ্যে ঊপস্থিত থবার কথা জানায়।সিরাজের সাথে কথা বলে জানা যায় বারংবার ফোন করা সত্ত্বেও তার নাগাল পাওয়া যায় না এবং তার দেখা পাওয়া যায় না। এতে করে সেভাবেই অপরেশন করা হয় এবং দূর্ভাগ্যজক ভাবে মা ও সন্তান দুজনএর কাউকে বাঁচানো সম্ভব হয় না। এমন অনেক প্রতারণামূলক ঘটনাই আমাদের আশেপাশে ঘটছে কিন্তু দেখার কেউ নেই। আসুন সবাই সামান্য অর্থলোভে প্রতারণা না করে স্বেচ্ছায় রক্তদানে উৎসাহিত হই এবং এসব প্রতারক চক্রকে প্রতিহত করি।

বৌ বাজার বস্তিতে ভয়াবহ আগুন, নিখোঁজ ২ শিশু

Fire accident
আগুন নেভানোর সময়ে এক ফায়ার সার্ভিস কর্মীর শরীরে পানি ছিটিয়ে দিচ্ছে তারই আর এক সহকর্মী

রাজধানীর বৌ বাজার বস্তিতে এক ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে পুড়ে গেছে শতাধিক ঘর ও প্রায় দশটি দোকান। পুরো বস্তি আগুনে পুড়ে গেছে। একটি ঘরও অবশিষ্ট নেই। আগুনের সূত্রপাত চা এর দোকানের আগুন থেকে বলে জানিয়েছে, এলাকাবাসী। বস্তিতে বসবাসরত দুটি শিশু নিখোঁজ রয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, তাদের আগুন থেকে বের করা হয় নি। ঐ সময়ে তাদের বাবা-মা বাইরে ছিলেন। বস্তিতে অধিকাংশ বাড়িতেই গ্যাসের সিলিন্ডার ব্যবহৃত হত। বিকট শব্দে বেশ কয়েকটি সিলিন্ডার বিস্ফোরিত হয়েছে।

ফায়ার সার্ভিস জানিয়েছে, বস্তিতে পানির তেমন কোন উৎস নেই, আর ভেতরে গাড়ি আসার মত অবস্থাও ঐরকম ছিল না। আর এ কারণেই আগুন লাগার প্রায় ১ ঘন্টা পরে তারা তাদের কাজ শুরু করে। তারা যখন সেখানে পৌঁছান, ততক্ষণে সবকিছু পুড়ে গেছে। এলাকাবাসী দুঃখ করে বলেন, আমরাত গরীব মানুষ, তাই আমাদের জীবনের কোন দাম নেই।

fire service bangladesh
আগুন নেভাচ্ছেন দমকল বাহিনীর লোকজন। তাদের সহায়তা করছেন এলাকাবাসী।

নিজের নাম প্রকাশ না করার শর্তে এক এলাকাবাসী জানিয়েছেন, বস্তিতে থাকা এক মাদক ব্যবসায়ীর প্রায় পাঁচ লাখ টাকার গাঁজা পুড়ে যায়।

fire accident of bangladesh
আগুন থেকে বেরিয়ে আসছেন একজন মহিলা

-যুবাইর বিন ইকবাল

মৃদু ভূমিকম্প

আজ সোমবার সকাল ৮ঃ১১ মিনিটে মৃদু ভূমিকম্প হয়েছে। রিখটার স্কেলে এর মাত্রা ছিল ৫.৩। উৎপত্তিস্থল ছিল মায়ানমার। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ভূতাত্ত্বিক জরিপ সংস্থার তথ্য অনুযায়ী, এ ভূমিকম্পের উৎপত্তিস্থল মিয়ানমারের মালাইক শহর থেকে প্রায় ৪০ কিলোমিটার উত্তর-পূর্বে।

Earthquake

কোন হতাহত বা ক্ষয়ক্ষতি হয় নি এতে।

-যুবাইর বিন ইকবাল, প্রেস বাংলাদেশ