নারী-পুরষের যৌন মিলন অধিকক্ষণ স্থায়ী করতে কিছু দরকারী সেক্স টিপস

কিছু সেক্স টিপস রয়েছে যা অনুসরণ করলে নারী এবং পুরষ যৌন মিলন উপভোগ করতে পারবে এবং যৌন মিলন হবে অধিকক্ষণ স্থায়ী।

সেক্স টিপস

যৌন মিলনের স্থায়িত্ব বাড়ান
সঙ্গীর কাছে যাবেন তখন পর্যাপ্ত সময় নিন। আলিঙ্গন করুন সঙ্গীর সাথে। সঙ্গীর দেহের সাথে আপনার দেহ আলিঙ্গনের মাধ্যমে ঊষ্ণতা উপভোগ করুন। তাকে বুঝতে চেষ্টা করুন।

ধীর গতিতে যৌন মিলন করুন
কখনই শুরুতেই ইন্টারকোর্স করবেন না। প্রথমে একে অপরকে প্রচুর চুমু খান। চুমু খান সঙ্গীর ঠোঁট, স্তন, পেট, কপাল, পিঠ এমনকি তার যোনিতেও। অপেক্ষা করুন, কখন আপনার স্ত্রী সঙ্গি আপনার যৌনাঙ্গ তার ভেতরে নিতে চায়। এতে যেমন আপনি শারীরিক ও মানসিক তৃপ্তি পাবেন, তা পাবে স্ত্রী সঙ্গিও।

প্রশংসা করুন
প্রতিটি মানুষ নিজের প্রশংসা শুনতে ভালবাসে। আপনি যখন তাকে আলিঙ্গন করছেন কিংবা চুমু খাচ্ছেন, এ সময়ে তার প্রশংসা করুন। প্রশংসা করুন স্ত্রীর স্তনের কিংবা সৌন্দর্যের। প্রশংসা করুন আপনার পুরষ সঙ্গীর যৌনাঙ্গের।

খাবার
কিছু খাবার আছে, যা নিয়মিত খেলে যৌন শক্তি বৃদ্ধি পাবে। এ সকল খাবার নিয়মিত খাওয়া উচিৎ।

  • ডিম
  • দুধ
  • কলা
  • মধু
  • পেঁয়াজ ও রসুন
  • বাদাম
  • আপেল

সিগারেট ও মাদক ও সেবন দীর্ঘস্থায়ী যৌনতার ক্ষেত্রে বাধা সৃষ্টি করে৷ এইগুলি অবশ্যই পরিহার করা উচিত। অতিরিক্ত খাবার গ্রহণ থেকেও বিরত থাকা উচিৎ। এতে পেট ভারী হয়ে যায়। এর ফলে যৌন মিলনে অনাগ্রহ চলে আসে।

আরামদায়ক স্থানে যৌনমিলন
নরম বিছানা, সোফা ইত্যাদি আরামদায়ক স্থানে যৌনমিলন করুন। এতে অবশ্যই তা উপভোগ্য হবে।

ফোর প্লে
যৌনমিলনের আগে অবশ্যই ফোর প্লে করবেন। প্রয়োজনে অধিক সময় নিয়ে ফোর প্লে করুন।

অন্য সঙ্গী পরিহার করুন
নিজের স্ত্রী বা স্বামী ব্যতীত অন্য যে কোন সঙ্গী পরিহার করুন। মনের ভাবনাগুলো তার সাথে শেয়ার করুন। তাকে সঠিকভাবে বুঝতে চেষ্টা করুন। সঙ্গিকে বুঝাতে চেষ্টা করুন, আপনি কি চান একই সঙ্গে সঙ্গিকেও বুঝাতে চেষ্টা করুন, আপনি তার কাছ থেকে কি চান।

পরিস্কার পরিচ্ছন্নতা
পরিস্কার পরিচ্ছন্ন থাকার চেষ্টা করুন। পরিষ্কার জামা-কাপড় পরিধান করুন। সুগন্ধি ব্যবহার করুন। মেয়েরা তাদের পুরুষ সঙ্গিকে আকর্ষণ করতে সুন্দর বিকিনি, নাইটি ইত্যাদি পরিধান করতে পারেন।

ব্যায়াম
নিয়মিত ব্যায়াম করুন। এতে শরীর থাকবে ঝরঝরে এবং মন থাকবে সতেজ।

যৌন মিলন দির্ঘস্থায়ী করতে বাজারে বেশ কিছু ঔষধ পাওয়া যায়, এগুলোর অধিকাংশই শরীরের জন্য ক্ষতিকর এবং কিছু রয়েছে যা কোন কাজেই আসে না। যে কোন সমস্য হলে কিংবা পরামর্শ প্রয়োজন হলে ডাক্তার কিংবা যৌন বিশেষজ্ঞর সাথে পরামর্শ করুন।

Related posts

Leave a Comment